হাতীবান্ধায় বাসের চাকায় পিষ্ট হয়ে নারী নিহত

লালমনিরহাট প্রতিনিধি:

লালমনিরহাটের হাতীবান্ধায়  স্বামীর পেনশনের টাকা নিয়ে বাড়ি ফেরার পথে বাসের  চাকায় পিষ্ট হয়ে অটোরিকসা যাত্রী আয়েশা বেগম (৪৫) নিহত হয়েছেন।

রোববার (৩১ জানুয়ারি) বিকেল ৩ টায় লালমনিরহাট-বুড়িমারী মহাড়কের হাতীবান্ধা উপজেলার শস্য গুদাম নামক এলাকায় এ দুর্ঘটনা ঘটে।

নিহত আয়েশা বেগম হাতীবান্ধা উপজেলা গড্ডিমারী ইউনিয়নের মধ্য গড্ডিমারী গ্রামের কৃষি ব্যাংক কর্মচারী মৃত আব্দুল সামাদ এর স্ত্রী।

পুলিশ সূত্রে জানা যায়, হাতীবান্ধা সোনালী ব্যাংক থেকে নিহত আয়েশা বেগম তার মৃত স্বামী কৃষি ব্যাংক কর্মচারীর পেনশনের টাকা উত্তোলন করে নিজ বাড়ী মধ্য গড্ডিমারী এলাকায় অটোরিকসা যোগে বাড়ি ফেরার পথে উপজেলার শস্য গুদাম এলাকায়  অটোরিকসা থেকে পড়ে গিয়ে বাস চাপায় নিহত হয়।

এ সময় যাত্রীবাহী শাম্মী পরিবাহন বাসটি পাটগ্রাম থেকে লালমনিরহটের দিকে যাচ্ছিল। পরে হাতীবান্ধা ফায়ার সার্ভিসের সদস্যরা মরদেহ উদ্ধার করেন। বাসের চালক ও হেল্পার পালিয়ে গেলেও হাতীবান্ধা থানা পুলিশ বাসটিকে আটক করেন।

এ বিষয়ে হাতীবান্ধা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) এরশাদুল আলম সড়ক দুর্ঘটনার বিষয়টি নিশ্চিত করে জানান, বাসটিকে আটক করে থানায় নিয়ে আসা হয়েছে।

এর আগে  গত সোমবার (১৮ জানুয়ারি ওই এলাকায় পাথরবোঝাই ট্রাকের চাকায় পিষ্ট হয়ে মোটরসাইকেল আরোহী দুই পুলিশ সদস্য নিহত হয়েছেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published.