রংপুর বিভাগে বাড়ছে করোনা আক্রান্তের সংখ্যা

রংপুর বিভাগে বাড়ছে করোনা আক্রান্ত রোগীর সংখ্যা। গত ২৪ ঘণ্টায় এ বিভাগে ২৮ জনের করোনা শনাক্ত হয়েছে। শনাক্তের হার ১৩ দশমিক ৬৬ শতাংশ। এ সময়ে কোনো মৃত্যু হয়নি।

এর আগের ২৪ ঘণ্টায় বিভাগের আট জেলায় ১৮ জনের শরীরে করোনা শনাক্ত হয়। ওইদিন শনাক্তের হার ছিল ১০ দশমিক ৮৪ শতাংশ।

শুক্রবার (১৪ জানুয়ারি) দুপুরে রংপুর বিভাগীয় স্বাস্থ্য পরিচালক ডা. আবু মো. জাকিরুল ইসলাম এসব তথ্য নিশ্চিত করেন।

তিনি জানান, ২০২০ সালের মার্চে করোনাভাইরাসের সংক্রমণ শুরুর পর থেকে এখন পর্যন্ত বিভাগে মোট শনাক্তের সংখ্যা ৫৫ হাজার ৯০৩ জন। একই সময়ে করোনায় আক্রান্ত হয়ে মারা গেছেন এক হাজার ২৫২ জন। সুস্থ হয়েছেন ৫৪ হাজার ২৭৮ জন।

এর মধ্যে গত ২৪ ঘণ্টায় বিভাগের আট জেলার ২০৫ জনের নমুনা পরীক্ষা করা হয়েছে। এর মধ্যে গাইবান্ধায় দুজন, লালমনিরহাটের তিনজন, রংপুরের আটজন ও দিনাজপুর জেলার ১৫ জন করোনা পজিটিভ হয়েছেন। ২৪ ঘণ্টায় বিভাগে ২৩ জন সুস্থ হয়েছেন।

রংপুর বিভাগে করোনায় সবচেয়ে বেশি আক্রান্ত ও মৃত্যু হয়েছে দিনাজপুরে। জেলায় সর্বোচ্চ আক্রান্ত ১৪ হাজার ৯৫৪ এবং ৩৩২ জন মারা গেছেন। দ্বিতীয় সর্বোচ্চ ২৯৩ জনের মৃত্যু হয়েছে বিভাগীয় জেলা রংপুরে। এ জেলায় আক্রান্তের সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ১২ হাজার ৬২০ জনে।

রংপুর বিভাগীয় স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের পরিচালক ডা. আবু মো. জাকিরুল ইসলাম বলেন, গণটিকাসহ বিভিন্ন বয়সী মানুষকে টিকার আওতায় আনার ফলে সংক্রমণ ও মৃত্যুর হার পূর্বের চেয়ে কমে আসছে। তবে বর্তমানে নতুন ভ্যারিয়েন্ট ওমিক্রন এবং করোনার ঊর্ধ্বমুখী পরিস্থিতিতে যেভাবে স্বাস্থ্যবিধি উপেক্ষিত হচ্ছে তা উদ্বেগজনক।

একই সঙ্গে শীতকালে করোনার সংক্রমণ বাড়ার আশঙ্কা করা হচ্ছে। করোনা প্রতিরোধে জনগণকে স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলতে হবে। বাইরে বের হলে মাস্ক ব্যবহার করা জরুরি।

Leave a Reply

Your email address will not be published.